অভিযানে জরিমানা করায় সারওয়ার আলমকে লিগ্যাল নোটিশ

অভিযানে জরিমানা করায় সারওয়ার আলমকে লিগ্যাল নোটিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক :
ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনে এক ব্যবসায়ীকে জরিমানা করায় র‍্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলমের বিষয়ে সরকারের সংশ্লিষ্ট পাঁচজনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। নোটিশে অভিযান পরিচালনার সময় জব্দ করা ১৫ লাখ টাকাও ফেরত দেয়ার আর্জি জানানো হয়েছে। নোটিশে আইন ও স্বরাষ্ট্র সচিব, র‍্যাব মহাপরিচালক, ঢাকা জেলা প্রশাসক ও সারওয়ার আলমকে বিবাদী করা হয়েছে।

১০ সেপ্টেম্বর, বৃহস্পতিবার দুপুরে নওয়ারপুরের এমএম এন্টারপ্রাইজের মালিক মো. মাকসুদুল আলম মাসুদের পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার এএম মাহবুব উদ্দিন খোকন রেজিস্ট্রি ডাকযোগে এই লিগ্যাল নোটিশ পাঠান।

নোটিশে ১৪ দিনের মধ্যে এমএম এন্টারপ্রাইজের মালিক মো. মাকসুদুল আলম মাসুদকে করা জরিমানার ১৫ লাখ টাকা ফেরত দিতে এবং তার সাজার রায় বাতিল করতে বলা হয়। অন্যথায় তার বিরুদ্ধে রিট আবেদন করা হবে।

গত ২০ মে অভিযান চালিয়ে নিম্নমানের ইলেকট্রনিকস পণ্য রাখার দায়ে মো. মাকসুদুল আলম মাসুদকে সাজা দেন র‍্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলম।

নোটিশে বলা হয়, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৪১ নম্বর ধারায় সর্বোচ্চ দুই লাখ টাকা, ৪৩ নম্বর ধারায় এক লাখ টাকা, ৪৪ নম্বর ধারায় এক লাখ টাকা, ৫০ নম্বর ধারায় দুই লাখ টাকা জরিমানা করার বিধান আছে। কিন্তু আইন লঙ্ঘন করে তাকে ১৫ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। যা সম্পূর্ণ বেআইনি।

নোটিশে আরও বলা হয়, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনে নিম্নমানের পণ্যের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনার জন্য ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর ও বিএসটিআইয়ের নিজস্ব নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রয়েছেন। সুতরাং নিম্নমানের পণ্যের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করার এখতিয়ার র‍্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেই। এসব প্রশ্ন তুলে অভিযান পরিচালনার সময় ১৫ লাখ টাকাও ফেরত দেয়ার আর্জি জানানো হয়েছে।

পোষ্টটি প্রয়োজনীয় মনে হলে শেয়ার করতে পারেন...
  • 13
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!